নারী ও শিশু আদালতে মামলা সাজিয়ে হয়রানি, বাদিকে গ্রেফতারের নির্দেশ

179
 নিজস্ব প্রতিবেদক: |  রবিবার, জানুয়ারি ১৬, ২০২২ |  ১০:২৫ অপরাহ্ণ
       
Advertisement

চট্টগ্রামে নারী ও শিশু নির্যাতন আদালতে মিথ্যা মামলা সাজিয়ে হয়রানির প্রেক্ষিতে মামলার বাদিকে গ্রেফতারের নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।

আজ ১৬ জানুয়ারি, রবিবার দুপুরে চট্টগ্রামের নারি ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-৪ এর বিচারক (জেলা ও দায়রা জজ) মো. জামিউল হায়দার এ আদেশ দেন। এর আগে গত বছরের ৩১ অক্টোবর হয়রানি মামলার বাদি বিলকিছ বেগমের বিরুদ্ধে নারি ও শিশু নির্যাতন দমন আইনের ১৭ ধারার ফৌজদারি অভিযোগে নগরের বায়েজিদ থানা আরেফন নগরের বাসিন্দা নুরুল হক মান্না নামের এক ভুক্তভোগী।

Advertisement

এ বিষয়টি নিশ্চিত করেন আইনজীবী আয়েশা আক্তার।

এদিকে বিলকিছের সাজানো দায়ের করা মামলার নথি থেকে জানা যায়, ২০০৯ সালের ২০ অক্টোবর মিথ্যা তথ্য দিয়ে নারি ও শিশু নির্যাতন দমন আইনের ৯(৪)(খ) ধারায় তিনজনকে আসামি করে নারি ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইবুনালে মামলা করেন বায়েজিদ থানার আরেফিন নগর এলাকার আবু বক্কর ছিদ্দিক প্রকাশ বাম্পারের মেয়ে বিলকিছ বেগম(৩৫)। মামলায় আসামি ছিলেন নুরুল হক মান্না, একই এলাকার আবদুল ওহাবের ছেলে কাজী নজরুল ইসলাম(৭২) এবং আলী জহিরের ছেলে ওসমান গনি পুতু। মান্না উচ্চ আদালত থেকে জামিন নেন, বাকী দুইজন বিভিন্ন মেয়াদে কারাভোগ করেন।

আইনজীবী আয়েশা আক্তার বলেন, আসামি বিলকিছ বেগম নারি ও শিশু নির্যাতন দমন আইনের ৯(৪)(খ) এর মত স্পর্শকাতর ধারায় মামলা করে বাদীসহ আরো দুই ব্যক্তিকে হয়রানি করেছেন। তারা দীর্ঘ সাড়ে ৯ বছর ওই মামলার ঘানি টেনেছেন। পরে তিনজনই নির্দোষ প্রমাণে খালাস পেয়েছেন। আমরা আদালতে বিষয়টি উপস্থাপন করতে সক্ষম হয়েছি। পরে এই আইনের ১৭ ধারায় আনিত ভুক্তভোগীর অভিযোগ আদালত আমলে নিয়ে আসামির বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারির নির্দেশ দিয়েছেন।

এসসি/

Advertisement

CTG NEWS